শ্রীপুরে নিরীহ কৃষক পরিবারের উপর হামলা | তিন মাসেও গ্রেপ্তার হয়নি আসামিরা

প্রকাশিত: ২:৫৩ অপরাহ্ণ, জুলাই ১৫, ২০২১ | আপডেট: ২:৫৬:অপরাহ্ণ, জুলাই ১৫, ২০২১
শ্রীপুরে নিরীহ কৃষক পরিবারের উপর হামলা | তিন মাসেও গ্রেপ্তার হয়নি আসামিরা

এস এম জহিরুল ইসলাম গাজীপুর:

গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার কাওরাইদ ইউনিয়নের বেলদিয়া গ্রামে গত প্রায় তিন মাস পূর্বে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে নিরীহ কৃষক পরিবারের উপর হামলা ও গৃহবধূ নারীদের উপর শ্লীলতাহানির ঘটনা ঘটেছে।

এ ঘটনায় গুরুতর আহত অবস্থায় ওই এলাকার লাল মিয়ার ছেলে শাহজালাল ও শাহীনকে প্রথমে শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়। শাহীন কিছুটা সুস্থ হলেও শাহজালালের অবস্থা এখনো আশঙ্কাজনক।

 

হামলার ঘটনায় কৃষক লাল মিয়া গত (২১ এপ্রিল) শ্রীপুর থানায় ৬ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন। আসামিরা হলেন, একই এলাকার মোঃ ইব্রাহিম (৪৮) ও তার দুই ছেলে জাহাঙ্গীর আলম (২৫) সাব্বির হোসেন (২০), মেয়ের জামাই মোঃ শরীফ (৩৫), মেয়ে মোছাঃ শামসুন্নাহার (২৩) ও স্ত্রী জাহানারা বেগম (৪২)।

 

মামলার বয়স প্রায় তিন মাস হলেও এখন পর্যন্ত কোনো আসামিকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি সংশ্লিষ্ট থানা পুলিশ। অথচ হামলা করার পরও দিব্যি প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়াচ্ছে আসামিরা।

 

ভুক্তভোগী কৃষক ও তার পরিবারের লোকজন বিচারের জন্য জনপ্রতিনিধি ও প্রশাসনের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন।

 

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, লাল মিয়ার আবাদ করা ফসলি জমিতে আসামিদের গৃহপালিত গরু, ছাগল, হাঁস, মুরগি গিয়ে নষ্ট করে। এ বিষয়ে বাধা দিলে তার পুত্রবধু স্বপ্নাকে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ শ্লীলতাহানি করে। এসব বিষয়ে বাধা দিলে তার দুই সন্তানসহ পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের এলোপাতাড়ি মারধর করে, মারাত্মক জখম করেন।

 

 

এলাকাবাসীর সাথে বৃহস্পতিবার (১৫ জুলাই) কথা বলে জানা যায়, ঊশৃংখল ও অসামাজিক কার্যকলাপের সাথে সবসময় জড়িত অভিযুক্ত আসামিরা। গায়ে পড়ে ঝগড়া মারামারি করে। কোন কিছু বোঝার আগেই নারীদেরকে লেলিয়ে দিয়ে অপমান অপদস্থ করার চেষ্টা করে। নিরীহ লাল মিয়ার পরিবারের উপর অমানবিক অত্যাচার করা হয়েছে। হতদরিদ্র মানুষ অর্থের অভাবে ভালোভাবে চিকিৎসাসেবা নিতে পারছে না।

 

ভুক্তভোগী কৃষক ও তার স্বজনরা জানান, আমাদের উপর হামলা করে আসামিরা উল্টো সাজানো মামলা দিয়েছে। এছাড়াও আসামিদের পুলিশ গ্রেফতার করেছে না। বিভিন্ন ভাবে হুমকি প্রদান করা হচ্ছে। এতে আমরা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। ন্যায় বিচারের জন্য গাজীপুর-৩ আসনের এমপি মুহাম্মদ ইকবাল হোসেন সবুজ ও স্থানীয় পুলিশ প্রশাসন ও গণমাধ্যমকর্মীদের সহযোগিতা চেয়েছেন ভুক্তভোগী লাল মিয়া ও পরিবার।

 

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক (এসআই) অহিদুজ্জামান জানান, মূল আসামি দুই জন পলাতক রয়েছে। বাকি আসামিরা জামিনে রয়েছেন। পলাতক আসামিদের ধরার চেষ্টা চলছে। মামলার চূড়ান্ত চার্জশিট দেওয়া হয়েছে।

 

শ্রীপুর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাহফুজ ইমতিয়াজ ভূঁইয়া বলেন, পলাতক আসামীদেরকে গ্রেফতারের অভিযান চলছে। খুব শীঘ্রই তাদের গ্রেপ্তার করা হবে।


পুরাতন খবর দেখুন..

Mon Tue Wed Thu Fri Sat Sun
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
262728293031